শুক্রবার ২৩ এপ্রিল, ২০২১

চাষাঢ়ায় আগুন জ্বালিয়ে হকারদের বিক্ষোভ

রবিবার, ৭ মার্চ ২০২১, ২২:৫১

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ শহরের ব্যস্ততম বঙ্গবন্ধু সড়কের ফুটপাতে অবাধে ব্যবসা করার দাবিতে চাষাঢ়ায় আগুন জ্বালিয়ে অবরোধ ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে হকাররা। রোববার (৭ মার্চ) বিক্ষুব্দ হকাররা বঙ্গবন্ধু সড়কে আগুন জ্বালিয়ে অবরোধ করে। এ সময় পুলিশ তাদের উপর লাঠিচার্জ করেছে বলেও অভিযোগ করে।

গত কয়েকদিন যাবৎ লাগাতার বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করছে শহরের বঙ্গবন্ধু সড়কের ফুটপাতে বসা হকাররা। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ফুটপাতে বসার দাবিতে রোববার বিকেলেও মিছিল বের করে শতাধিক হকার। মিছিলটি চাষাঢ়া থেকে শুরু করে বঙ্গবন্ধু সড়ক প্রদক্ষিণ করে গলাচিপার মোড়ে এসে শেষ হয়। এদিকে সন্ধ্যার পরপরই আবারও সড়কে নেমে আসে অর্ধশতাধিক হকার। তারা অভিযোগ করেন, ফুটপাতে বসতে যাওয়ায় তাদের কয়েকজনকে লাঠিপেটা করেছে পুলিশ। এমন অভিযোগে পুলিশের বিরুদ্ধে নানা স্লোগান দেয় হকাররা। এদিকে হকার নেতা আসাদুল ইসলাম আটক হয়েছেন বলে খবর ছড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে পুলিশ ও হকারদের মধ্যে উত্তেজনা তৈরি হয়। এদিকে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ্ জামান অতিরিক্ত পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌছান। তিনি হকারদের সড়ক ছেড়ে দেওয়ার জন্য বলেন।

কিন্তু হকাররা নূর মসজিদের সামনে বঙ্গবন্ধু সড়ক অবরোধ করে যান চলাচল বন্ধ করে দেয়। তীব্র যানজট তৈরি হলে কঠোর ভূমিকায় যায় পুলিশ। এক পর্যায়ে অবরোধ তুলে না নিলে গ্রেফতারের হুশিয়ারি দেন সদর থানার ওসি। পরে অবরোধ ছেড়ে দেয় হকাররা। পরে পুলিশ নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে আসলে সাধু পৌলের গীর্জার সামনে ঝুট দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয় হকাররা। আগুন জ্বালিয়ে বঙ্গবন্ধু সড়কের একপাশ অবরোধ করে তারা। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছালে পালিয়ে যায় হকাররা। পরে পানি দিয়ে আগুন নেভায় পুলিশ। বিকেলে হকারদের মিছিল থেকে শুরু করে সন্ধ্যা পর্যন্ত প্রায় দুই ঘন্টা পর সড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

জানতে চাইলে জেলা হকার সংগ্রাম পরিষদের আহ্বায়ক আসাদুল ইসলাম বলেন, ফুটপাতে বসে ব্যবসা করার দাবিতে সপ্তম দিনের মতো মিছিল গলাচিপার মোড়ে শেষ হয়। মিছিল শেষে কিছু হকার ফুটপাতে বসতে চাইলে পুলিশ তাদের লাঠিপেটা করে বলে অভিযোগ করে এই হকার নেতা।
আসাদুল ইসলাম বলেন, ‘নূর মসজিদ থেকে নামাজ শেষে বের হওয়ার পর আমাকেও আটক করতে চায় পুলিশ। আমাকে নিয়ে টানাহেচড়া করে। পুলিশের লাঠিচার্জ ও আমাকে আটকের খবর পেয়ে সড়কে আগুন জ্বালিয়ে দেয় হকাররা।’ পুলিশের লাঠিচার্জের প্রতিবাদে আগামীকাল সোমবার শহীদ মিনারে সমাবেশ করারও ঘোষণা দেন এই হকার নেতা।

এদিকে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ্ জামান বলেন, ‘প্রতিদিনই তাদের মিছিল ও সমাবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে। তাদের উপর কোনোদিনই লাঠিচার্জ করা হয়নি। আজ একবার মিছিল করেও পরে আবার তারা সড়কে আগুন ধরিয়ে দেয়। দীর্ঘক্ষণ তারা অবরোধ করে রাখে। তাদের উপর কোনো লাঠিচার্জ করা হয়নি।’

তিনি আরও বলেন, ‘হাইকোর্ট ও উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশ অনুযায়ী ফুটপাত মানুষের চলাচলের জন্য। ফুটপাতে বসে কাউকে ব্যবসা করতে দেওয়া হবে না। শান্তিপূর্ণ আন্দোলন কেউ করতে চাইলে তাতেও বাধা দেওয়া হবে না। তবে অরাজকতা সৃষ্টি করতে চাইলে পুলিশ আইনানুগ ভূমিকায় থাকবে।’

সব খবর
নগর বিভাগের সর্বশেষ