শনিবার ২৮ নভেম্বর, ২০২০

৩ ঘন্টায় তিনবার ধর্ষণের শিকার বিধবা নারী

বৃহস্পতিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২০, ১৬:৪৮

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ধর্ষণের শিকার বিধবা নারীকে (৪০) বিচার পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে আরও দুই দফায় গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। মাত্র তিন ঘন্টার ব্যবধানে একবার ধর্ষণ ও দুইবার গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন দুই সন্তানের জননী বিধবা ওই নারী। চাঞ্চল্যকর এই ঘটনার প্রধান আসামিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) সকালে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

মামলার এজাহারে বাদী উল্লেখ করেন, গত ৭ অক্টোবর রাতে ওষুধ কিনতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার হন তিনি। পরে এই ঘটনার মীমাংসার কথা বলে আরও তিনজন তাকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। একই রাতে আরও দুই ব্যক্তির দ্বারা দ্বিতীয় দফায় গণধর্ষণের শিকার হন ওই নারী।

এ ঘটনায় গত ১৪ অক্টোবর রাতে নির্যাতনের শিকার নারী বাদী হয়ে ছয়জনকে আসামি করে আড়াইহাজার থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। আসামিরা হলেন, আড়াইহাজারের নৈকাহনের মৃত বাছির উদ্দিনের ছেলে আলী আকবর (৫০), একই এলাকার মৃত আব্দুল মালেকের ছেলে মোস্তফা (৫৫), মৃত রহমত আলীর ছেলে আনারুল (৪০), ডা. হোসেন মিয়ার ছেলে লিটন (৩২), খোকা মিয়ার ছেলে তরিকুল ইসলাম (৩৫) ও লস্কর আলীর ছেলে শাহীন (৩২)।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ৭ অক্টোবর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার নৈকাহন বাজারে ওষুধ কিনতে যান। এ সময় আলী আকবর তাকে ডেকে নিয়ে মাছের বাজারের একটি দোকানের সাটার বন্ধ করে ধর্ষণ করে। ওই নারী দোকান থেকে বেরিয়ে আসলে ঘটনা জানতে চান মামলার অপর আসামি মোস্তফা, আনারুল ও লিটন। এই ঘটনার বিচার পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে লিটনের পুকুরপাড়ে নিয়ে একই রাত সাড়ে ৮টায় তিনজন পালাক্রমে তাকে ধর্ষণ করে। এরপর লিটন মোবাইলের মাধ্যমে শাহীন ও তরিকুলকে ডেকে আনে। ওই রাতের সাড়ে ১০টার দিকে একই এলাকার আলী হোসেনের নির্মাণাধীন ভবনের ছাদে পুনরায় গণধর্ষণের শিকার হন বলে মামলায় উল্লেখ করেছেন বাদী।

এ বিষয়ে আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম বলেন, বিধবা নারীকে গণধর্ষণের ঘটনায় ৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। প্রধান আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ