১৬ জুলাই ২০২৪

প্রেস নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত: ১৯:৫৭, ২৯ মে ২০২৪

জাপান আমাদের ভালো বন্ধু: মেয়র আইভী

জাপান আমাদের ভালো বন্ধু: মেয়র আইভী

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেছেন, ‘গত বছর আমরা জাপানে নারুতো সিটিতে চারটি বিষয়ের উপর ফ্রেন্ডশীপ সিটি চুক্তি স্বাক্ষর করি। তবে, এর আগে এ চুক্তির পেছনে ছয় থেকে সাত বছর সময় ব্যয় করতে হয়েছে। ওই সময় দুই দেশের রাষ্ট্রদূতরা এই কাজে সহযোগিতা করেছেন এবং এখনও করে যাচ্ছেন। জাপানের সহযোগিতায় নারায়ণগঞ্জে বেশকিছু প্রকল্পও বাস্তবায়ন করা হয়েছে।’

বুধবার (২৯ মে) সকালে জাপানের নারুতো ও বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জ সিটির মধ্যে ‘বন্ধুত্ব চুক্তির’ বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠঅনে তিনি এ কথা বলেন।
নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের সহযোগিতায় জাপানিজ ল্যাঙ্গুয়েজ ট্রেনিং সেন্টারের মাধ্যমে ইতোমধ্যে ১৭ জন কর্মীকে জাপানে পাঠানো হয়েছে জানিয়ে আইভী বলেন, ‘আমরা শিক্ষা ও সংস্কৃতি খাতেও কাজ করছি। শিক্ষার জন্য যারা যেতে চাইবে তাদের আমরা সহযোগিতা করবো। তবে, এক্ষেত্রে মূল শর্ত হচ্ছে ভাষা শিক্ষা। জাপান কৃষিখাতেও মানুষ নিতে আগ্রহী।’

বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের নিদর্শন হিসেবে জাপান থেকে ৩০টি সাকুরা গাছ নারায়ণগঞ্জে পাঠানো হয়েছে, যার মধ্যে এখনও সাতটি বেঁচে আছে বলে জানান নাসিক মেয়র।

তিনি বলেন, এছাড়া দুই দেশের সংস্কৃতি বিনিময়ের লক্ষ্যে নগরভবনের সামনে একটি দোকান স্থাপন করা হয়েছে যেখানে জাপান ও বাংলাদেশে তৈরি পণ্য কিনতে পাওয়া যায়।

আইভী বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু থাকতে ১৯৭১ সাল থেকে জাপান আমাদের খুব ভালো বন্ধু। সেই বন্ধুত্বের নজির তারা ইতোমধ্যে রেখেছে। দুই দেশের মধ্যে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বাড়াতে নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে জাপানের সাথে যৌথভাবে বাংলাদেশ সরকার বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল করেছে।’

দুই দেশের গান, নৃত্য ও সাংস্কৃতিক পরিবেশনার মধ্য দিয়ে জাপানের নারুতো ও বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জ সিটির মধ্যে ‘বন্ধুত্ব চুক্তির’ বর্ষপূর্তি উদযাপিত হয়েছে। সকাল দশটায় নারায়ণগঞ্জ শহরের আলী আহাম্মদ চুনকা নগর পাঠাগার ও মিলনায়তনে দিনব্যাপী এই আয়োজন শুরু হয়, চলে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত।

এই সময় বাংলাদেশে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত ইয়োমা কিমিওনারি ও জাপানের ব্যবসায়ী প্রতিনিধি দল উপস্থিত ছিলেন। জাপানের নারুতো সিটি মেয়র মিচিহিকো ইজোমি ভার্চুয়ালি তার বক্তব্য রাখেন।

গত বছরের ২৮ মার্চ ‘ফ্রেন্ডশীপ সিটি’ হিসেবে দুই দেশের নারায়ণগঞ্জ ও নারুতো সিটির মধ্যে সংস্কৃতি, অর্থনীতি, শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিনিময়ে চুক্তি স্বাক্ষর হয়।

জাপান ও বাংলাদেশের সংস্কৃতিকে তুলে ধরতে এই সময় সাংস্কৃতিক পরিবেশনা করা হয়। অডিটোরিয়ামের নিচতলায় অবস্থিত মিনিপ্লেক্স সিনেস্কোপে একটি জাপানি চলচ্চিত্রও প্রদর্শিত হয়।

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের নগর পরিকল্পনাবিদ মঈনুল ইসলামের সঞ্চালনায় এই সময় আরও উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা জাকির হোসেন, সিটি কাউন্সিলর কামরুল ইসলাম মুন্না, মো. মনিরুজ্জামান, নারী কাউন্সিলর আফসানা আফরোজ বিভা, শাওন অংকন, শানিয়া সাউদ, নারায়ণগঞ্জ সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি জিয়াউল ইসলাম কাজল, সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহীন মাহমুদ, আন্তর্জাতিক পুরস্কারপ্রাপ্ত চলচ্চিত্র নির্মাতা মোহাম্মদ নুরুজ্জামান, নারায়ণগঞ্জ ফটোগ্রাফিক ক্লাবের সভাপতি জয় কে রায় চৌধুরী প্রমুখ।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়